সন্তানদের সামনেই মাকে মারলেন বিমান কর্মী

0
98

mom_45506_1492987814আন্তর্জাতিক ডেস্ক: মার্কিন বিমানসংস্থার ফ্লাইটে আবার যাত্রী হেনস্থার ঘটনা ঘটল। এবারে অভিযোগ আরও গুরুতর। এক নারী যাত্রীর ওপর চড়াও হয়েছেন আমেরিকান এয়ারলাইন্সের এক বিমান কর্মী।

ছোট দুই শিশুকে নিয়ে বিমানে উঠেছিলেন ওই নারী। অভিযোগ, তার কাছ থেকে প্র্যামটি (শিশুকে বসিয়ে ঠেলে নিয়ে যাওয়ার গাড়ি কেড়ে নেন ওই কর্মী। এমনকি ওই নারীর গায়ে হাতও তোলেন।

জখম হতে পারত শিশু দুটিও। এখানেই শেষ নয়। দুই শিশুসহ ওই নারীকে নামিয়েও দেয়া হয় বিমান থেকে। খবর এএফপির।

শুক্রবার রাতে সানফ্রান্সিসকো থেকে ডালাস যাচ্ছিল বিমানটি। কিন্তু ওড়ার মুখে বিনা কারণেই ওই যাত্রীর ওপর চোটপাট শুরু করেন অভিযুক্ত বিমান কর্মী।

কথা কাটাকাটি হতে হতে এক সময় হঠাৎই ওই নারীর সঙ্গে থাকা বাচ্চাদের প্র্যামটি কেড়ে নেন ওই কর্মী। দুই যমজ সন্তানকে নিয়ে তখন দিশাহারা ওই যাত্রী ভেঙে পড়েন কান্নায়। থাকতে না পেরে প্রতিবাদ করেন এক সহযাত্রী।

ওই বিমানকর্মীকে বলেন, ‘আপনি যদি এটা আমার সঙ্গে করতেন, আমি আপনাকে মেরে শুইয়ে দিতাম। আর একটু হলে আপনি একটা বাচ্চাকে আঘাত করতেন।’ এতেও দমে না গিয়ে ওই কর্মী বলেন, ‘আপনি পুরো ঘটনাটি জানেন না।’ হয়রানির এখানেই শেষ নয়।

এর পরে দুই শিশুসহ ওই নারীকে বিমান থেকেই নামিয়ে দেয়া হয়। তাদের ফেলে রেখেই বাকি যাত্রীদের নিয়ে ডালাস উড়ে যায় বিমানটি। গোটা ঘটনাটি রেকর্ড করেন সুরাইন আদ্যন্তয় নামে আর এক যাত্রী।

দ্রুত সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে ভিডিওটি। শনিবার সকালের মধ্যে প্রায় চার হাজার বার শেয়ার হয়েছে এটি। চাপের মুখে পড়ে এই ঘটনার নিন্দা করেছে মার্কিন বিমান সংস্থাটি।

একটি বিবৃতিতে তারা বলেছে, ‘ভিডিওতে ওই মহিলার সঙ্গে যে ব্যবহার করা হয়েছে, তা একেবারেই আমাদের আদর্শের বিরোধী।

আমরা যাত্রীদের সঙ্গে এই রকম ব্যবহার সমর্থন করি না।’ বিমান সংস্থাটি জানাচ্ছে, ওই কর্মীকে কাজ থেকে সাসপেন্ড করা হয়েছে। গোটা ঘটনার জন্য ক্ষমাও চেয়ে নিয়েছে বিমান সংস্থাটি। শুরু হয়েছে তদন্ত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here