সংসদ উপনেতার গাড়িবহরে হামলা, গ্রেফতার ৩

0
73

নিউজ ডেস্ক: সংসদ উপনেতা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী ও তার জ্যেষ্ঠ ছেলে নগরকান্দা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আয়মান আকবর বাবলু চৌধুরীর গাড়িবহরে হামলার ঘটনায় তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

শুক্রবার রাতে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতার ব্যক্তিরা হলেন- উপজেলার কদমতলি গ্রামের মৃত আবদুল করিম মাতব্বরের ছেলে মজিবুর রহমান (৫২), ধুতড়া  হাটি সাত্তার শেখের ছেলে সেলিম হোসেন (২৭) ও একই গ্রামের দেলোয়ার শেখের ছেলে সজীব শেখ (১৮)।

নগরকান্দা থানার ওসি এএফএম নাসিম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, সংসদ উপনেতা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীর গাড়ি বহরে হামলা ও পুলিশের ওপর হামলার ঘটনায় নগরকান্দা থানায় শুক্রবার রাতেই ৬৯ জনকে আসামি করে পৃথক দুটি মামলা হয়েছে।

আওয়ামী লীগের ক্রীড়া সম্পাদক আরিফ হোসেন বাদী হয়ে  সংসদ উপনেতার গাড়ি বহরে হামলা মামলাটি করেন এবং পুলিশের ওপর হামলা ও ভাংচুরের ঘটনায় ওপর মামলাটি করেন এসআই হুমায়ুন।

এই দুই মামলায় ৬৯ জনকে আসামি করা হয়েছে। এ ঘটনায় তিনজনকে আটক করা হয়েছে বলে জানান ওসি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শুক্রবার সংসদ উপনেতার আগমন উপলক্ষে তার সমর্থকরা উপজেলার ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কের তালমা মোড়ে একত্রিত হন। এ সময় প্রতিপক্ষ উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জামাল হোসেন মিয়ার সমর্থকরা বাধা দেয়ার চেষ্টা করলে সাজেদা চৌধুরীর সমর্থকরা রাস্তার পাশে টানানো প্রতিপক্ষের কয়েকটি বিলবোর্ড ভাংচুর করেন।

এ সময় পুলিশ জামাল হোসেনের সমর্থকদের মোড় থেকে একটু দূরে সরিয়ে দেয়।

দুপুর আড়াইটার দিকে সংসদ উপনেতা সাজেদা চৌধুরীর গাড়িবহর তালমার মোড়ে পৌঁছালে জামাল হোসেনের সমর্থকরা বাধা দেন। এনিয়ে কথাকাটাকাটির একপর্যায়ে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া শুরু হয়। এ সময় জামাল হোসেনের সমর্থকরা লাঠিসোটা নিয়ে সংসদ উপনেতার গাড়িবহরে হামলা এবং দুটি গাড়ি ভাংচুর করেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ ও সংসদ উপনেতার নিরাপত্তায় নিয়োজিত নিরাপত্তা রক্ষীরা বেশ কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোড়েন।

পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে সাজেদা চৌধুরীকে নিরাপদে নিজ বাড়ি সালথা উপজেলার গট্রি ইউনিয়নের রসুলপুর গ্রামের হামিদ মঞ্জিলে পৌঁছে দেয়।

গাড়িবহরে হামলার সময় নগরকান্দা থানার ওসি এএফএম নাসিমসহ কয়েকজন আহত হয়েছেন। তাকে নগরকান্দা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। সংসদ উপনেতা সুস্থ ও নিরাপদে আছেন বলে জানিয়েছেন তার ছেলে আয়মান আকবর বাবলু চৌধুরী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here