সংবাদপত্র প্রকাশে অশুভ প্রতিযোগিতা “নিউইয়র্কের শীর্ষ ১০ সম্পাদকের উদ্বেগ”

0
67

নিউইয়র্ক: যুক্তরাষ্ট্রে বাংলা সংবাদপত্রের পাঠক চাহিদা এবং বিজ্ঞাপন বাজার যাচাই না করে বিশেষ উদ্দেশ্যে রাতারাতি পত্রিকা প্রকাশের অশুভ প্রতিযোগিতা শুরু হয়েছে স্থানীয় কমিউনিটিতে। বিশেষ করে বাংলাদেশের বিত্তবান ব্যবসায়ী মহলের মালিকানাধীন দৈনিক পত্রিকার সাপ্তাহিক সংস্করণ যুক্তরাষ্ট্রে প্রকাশ এবং এ ধরণের আরো কয়েকটি পত্রিকা প্রকাশের প্রস্তুতি চলছে এমন সংবাদে কমিউনিটিতে বিরূপ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে। বিজ্ঞাপনের সীমিত বাজারে ব্যবসায়ীদের উপর বাড়তি চাপ ছাড়াও বিব্রত বোধ করছেন তারা। পক্ষান্তরে দীর্ঘ তিন দশক ধরে কমিউনিটির কল্যাণ ও উন্নয়নে নিবেদিত প্রাণ সংবাদপত্রগুলোকে মুখোমুখি হতে হচ্ছে অসম ও অশুভ প্রতিযোগিতার। এহেন পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে নিউইয়র্কের শীর্ষ স্থানীয় ১০টি পত্রিকার মালিক/সম্পাদক উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

জ্যাকসন হাইটসের বেলাজিনো পার্টি হলে গত ১২ ফেব্রুয়ারী সোমবার সন্ধ্যায় আয়োজিত মালিক/সম্পাদকদের তৃতীয় বৈঠকে অংশ নেন সাপ্তাহিক ঠিকানার সম্পাদকমন্ডলীর সভাপতি এমএম শাহীন, সাপ্তাহিক বাঙালী সম্পাদক কৌশিক আহমেদ, সাপ্তাহিক পরিচয় সম্পাদক নাজমুল আহসান, সাপ্তাহিক বাংলা পত্রিকা সম্পাদক আবু তাহের, সাপ্তাহিক বাংলাদেশ সম্পাদক ডা: ওয়াজেদ এ খান, সাপ্তাহিক জন্মভূমি সম্পাদক রতন তালুকদার, সাপ্তাহিক আজকাল এর প্রধান সম্পাদক জাকারিয়া মাসুদ জিকো, সাপ্তাহিক বর্ণমালা সম্পাদক মাহফুজুর রহমান, সাপ্তাহিক প্রবাস সম্পাদক মোহাম্মদ সাঈদ। সাপ্তাহিক দেশবাংলা ও বাংলা টাইমস এর প্রধান সম্পাদক ডা: চৌধুরী সারোয়ারুল হাসান বৈঠকে উপস্থিত থাকতে না পারলেও সকলের সিদ্ধান্তের সঙ্গে ঐকমত্য পোষণ করেন।

সম্পাদকবৃন্দ বলেন, আমেরিকার বাংলাদেশী ইমিগ্রান্ট কমিউনিটির ক্রমবিকাশ এবং আজকের এ অবস্থান সৃষ্টির নেপথ্যে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে বাংলা সংবাদপত্রগুলো। বাংলাদেশী কমিউনিটিকে আরো শক্তিশালী ও মর্যাদাবান করার লক্ষ্যে পত্রিকাগুলো ঐক্যবব্ধভাবে কাজ করবে বলে প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন তারা।

প্রবাসীদের প্রাত্যহিক জীবনযাত্রা, তাদের সুখ-দু:খ, কৃতিত্ব এবং বাংলাদেশী ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের আর্থিক উন্নয়ন, নতুন প্রজন্মের সন্তানদের শিক্ষা ও চাকুরি ক্ষেত্রে সাফল্য গাঁথা তুলে ধরার মাধ্যমে বাংলা ভাষার পত্রিকাগুলো কমিউনিটি তথ্য প্রবাহের ক্ষেত্রে ভিন্ন মাত্রা সংযোজন করেছে বলে মন্তব্য করেন সম্পাদকবৃন্দ। পত্রিকাগুলোর বিরামহীন প্রকাশনা ও উত্তরণে পৃষ্ঠপোষকতার জন্য কমিউনিটির ব্যবসায়ী ও বিভিন্ন শ্রেনী পেশার নেতৃবৃন্দের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন তারা। সম্পাদকবৃন্দ বলেন, বাংলাদেশী কমিউনিটির সীমিত ব্যবসায় বাণিজ্য এবং বিজ্ঞাপন বাজারে ভূঁইফোড় সংবাদপত্র প্রকাশনা সুস্থ প্রতিযোগিতার পর্যায়ে পড়ে না। সাংবাদিকতায় পেশাদারিত্ব বজায় রাখার পাশাপাশি স্থানীয় মিডিয়া জগতে সুস্থ ও নির্মল প্রতিবেশ গড়ে তোলার ব্যাপারে সকলের সহযোগিতার উপর গুরুত্বারোপ করেন সম্পাদকগণ। এ লক্ষ্যে অচিরেই সংবাদপত্র ও সাংবাদিকতা বিষয়ের উপর কমিউনিটি ভিত্তিক একটি সেমিনার আয়োজনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় বৈঠকে।

বৈঠকে পত্রিকা প্রকাশ, বিতরণ ও বিজ্ঞাপন সহ বিভিন্ন স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়। সম্পাদকদের পরবর্তী বৈঠক মার্চের প্রথম সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here