যৌন নিগ্রহবিরোধী আন্দোলন নিয়ে ফের ট্রাম্পের মশকরা

0
5

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের সুপ্রিমকোর্টে নতুন নিয়োগ পাওয়া বিচারপতি ব্রেন কাভানাকে নিয়ে বিতর্ক না থামতেই ফের #মিটু আন্দোলন নিয়ে এমন মশকরা করলেন তিনি।

মধ্যবর্তী নির্বাচন নিয়ে বুধবার পেনসিলভানিয়ায় একটি সভায় তিনি বলেন, ওই আন্দোলনের জন্যই তিনি ‘দ্য গার্ল দ্যাট গট আওয়ে’ শব্দবন্ধনীটি ব্যবহার করতে পারেন না। গত জুলাইয়েও এই আন্দোলন নিয়ে কটাক্ষ করেছিলেন ট্রাম্প।

যৌন হয়রানির অভিযোগে হলিউড প্রযোজক হার্ভি ওয়েনস্টাইনের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছিলেন হলিউডের বহু অভিনেত্রী। তার পর থেকেই বিশ্বজুড়ে জোরালো হচ্ছে #মিটু আন্দোলন।

ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধেও এক সময় বহু নারী যৌন নিগ্রহের অভিযোগ এনেছিলেন। কিন্তু তিনি বরাবর সেই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন এবং বিষয়টি নিয়ে রসিকতা ও মশকরা করে এসেছেন।

তার পাল্টা দাবি, বিশ্বে নিপীড়িত পুরুষদের নিয়ে তিনি বেশি চিন্তিত।

তবে এরই মধ্যে যৌন হেনস্তা নিয়ে মুখ খুলেছেন হলিউড অভিনেতা আরনল্ড শোয়াজনেগার। ৭১ বছরের এ অভিনেতা এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, অতীতে বেশ কিছু নারীর সঙ্গে অশালীন আচরণ করেছিলেন তিনি। পরে তার জন্য ক্ষমাও চেয়ে নেন।

মার্কিন ফার্স্টলেডি মেলানিয়া ট্রাম্প আবার এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, খাস হোয়াইট হাউসেই এমন কিছু মানুষ বাস করেন, যাদের তিনি একেবারেই বিশ্বাস করেন না। প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পও বিষয়টি নিয়ে ওয়াকিফহাল বলে জানান মেলানিয়া।

যদিও ফার্স্টলেডির এ বক্তব্যের সঙ্গে যৌন হেনস্তার কোনো সম্পর্ক নেই বলেই মনে করা হচ্ছে। বিষয়টি নিয়ে প্রেসিডেন্টকেও জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here