যুক্তরাষ্ট্রে মসজিদে আগুন দিল সন্ত্রাসীরা

0
209

mosআন্তর্জাতিক ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডায় রোববার মাঝরাতে একটি মসজিদে আগুন দেয়া হয়৷ প্রায় পাঁচ ঘণ্টা পর সেই আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা হয়৷ এটি ‘হেট ক্রাইম’ হতে পারে বলে মনে করছে পুলিশ৷

গত জুন মাসে ফ্লোরিডার একটি নাইট ক্লাবে হামলা চালান ওমর মতিন নামে এক ব্যক্তি৷ ওই ঘটনায় ৪৯ জন নিহত ও ৫৩ জন আহত হয়েছিলেন৷ মতিন ঐ মসজিদে যাওয়া আসা করতেন বলে জানা গেছে৷ সে কারণে মসজিদে হামলা হয়ে থাকতে পারে বলে মনে করছেন স্থানীয় মুসলিম নেতারা৷

নাইট ক্লাবে হামলার পর থেকেই স্থানীয় মুসলিম সম্প্রদায়ের ওপর ও মসজিদে হামলার হুমকি দেয়া হচ্ছে বলে জানান ‘কাউন্সিল অন অ্যামেরিকান-ইসলামিক রিলেশন্স’ এর ফ্লোরিডার মুখপাত্র উইলফ্রেডো আমর রুইজ৷ তিনি বলেন, ‘‘শুরুর দিকে হুমকিমূলক ভয়েসমেল আসত৷ পরে নামাজিদের লক্ষ্য করে পানি ছোঁড়া হয়েছে৷ এছাড়া ফজরের নামাজ পড়তে আসা একজনকে মারধরও করা হয়েছে৷”

স্থানীয় পুলিশের প্রকাশ করা ভিডিওতে, রবিবার মাঝরাতের কিছুক্ষণ আগে এক ব্যক্তিকে মসজিদে আগুন দিতে দেখা যাচ্ছে৷ ঐ ব্যক্তি সম্পর্কে তথ্য পেতে পুলিশ ভিডিওটি প্রকাশ করেছে৷

সেন্ট লুসি কাউন্টি পুলিশের মুখপাত্র ডেভিড টম্পসন বলেছেন, ‘‘আগুন লাগানোর সময়কাল বিবেচনা করে মনে হচ্ছে এটি ‘হেট ক্রাইম’ হতে পারে৷” উল্লেখ্য, রবিবার ছিল নাইন ইলেভেনের ১৫ বছর পূর্তি৷ আর সোমবার ঈদের দিন৷ রবিবার মাঝরাতে লাগানো আগুন নেভে সোমবার সকালে৷

এদিকে, ‘ইসলামিক সেন্টার অফ ফোর্ট পিয়ার্স’ এর সহকারি ইমাম হামাদ রহমান বলেছেন, ‘‘মসজিদে আগুন লাগানোর ঘটনায় আমাদের প্রায় ১০০ জন সদস্য ব্যথিত ও আতংকিত৷” তবে মসজিদটি পুনরায় সংস্কার করা হবে বলেও জানান তিনি৷
সূত্র : ডয়েচে ভেলে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here