যুক্তরাষ্ট্রের সন্ত্রাসী তালিকায় হামাস নেতা ইসমাইল হানিয়া

0
40

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: ফিলিস্তিনের ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের রাজনৈতিক শাখার নেতা ইসমাইল হানিয়াকে বিশ্ব সন্ত্রাসী তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করেছে যুক্তরাষ্ট্র। বুধবার দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, হামাসের সামরিক শাখার সঙ্গে হানিয়ার ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক রয়েছে। এছাড়াও তিনি ইসরাইলের বেসামরিক লোকজনের বিরুদ্ধে সশস্ত্র সংগ্রামের প্রস্তাবক।-খবর আল-জাজিরা ও বিবিসি অনলাইনের

সন্ত্রাসী তালিকায় হানিয়ার নাম ওঠার অর্থ হচ্ছে তার ওপর যুক্তরাষ্ট্রে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে এবং দেশটিতে তার কোন সম্পদ থাকলে তা বাজেয়াপ্ত করা হবে। যুক্তরাষ্ট্রের কোন নাগরিক কিংবা কোম্পানি তার সঙ্গে ব্যবসায়িক সম্পর্ক রাখতে পারবে না।

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকা নিয়ন্ত্রণ করা হামাসকে ইতিমধ্যে যুক্তরাষ্ট্র, ইসরাইল, ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও যুক্তরাজ্য সন্ত্রাসী সংগঠনের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করেছে। হানিয়াকে কালো তালিকাভুক্তকরণকে অর্থহীন বলে আখ্যায়িত করেছে হামাস।

এক বিবৃতিতে হামাস জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এই সিদ্ধান্ত আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন। ইসরাইলি দখলদারিত্বের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ ও নিজেদের নেতা নির্বাচন করার অধিকার ফিলিস্তিনি জনগণের আছে।

হামাস বলেছে, যুক্তরাষ্ট্রের এই সিদ্ধান্ত ইসরাইলের দখলদারিত্বের প্রতি পক্ষপাতিত্বপূর্ণ ও ফিলিস্তিনি জনগণের বিরুদ্ধে ইসরাইলের অপরাধকে বৈধতা দেয়ার শামিল।

শত্রুতামূলক নীতি বাদ দিয়ে ওয়াশিংটনকে এ সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের আহ্বান জানিয়ে হামাস বলেছে, দখলদারদের হাত থেকে আমাদের ভূমি ও পবিত্র স্থানকে মুক্ত করা এবং জনগণের প্রতি আমাদের দায়িত্ব পালন থেকে কেউ বিরত রাখতে পারবে না।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here