মার্কিন বোমায় ইয়েমেনে শিশু হত্যা সৌদি আরবের

0
14

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: যে বোমাটি ব্যবহার করে ইয়েমেনে স্কুলে বাসে হামলা চালিয়ে ৪০টি শিশু হত্যা করা হয়েছে, মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অস্ত্র চুক্তির আওতায় সেটি সৌদি আরবের কাছে বিক্রি করা হয়েছিল।

ইয়েমেনের স্থানীয় সাংবাদিক ও অস্ত্রবিশেষজ্ঞদের সঙ্গে কাজ করার পর মার্কিন সংবাদ মাধ্যম সিএনএন দাবি করেছে, গত ৯ আগস্ট সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট শিশুদের হত্যা করতে ৫০০ পাউন্ডের লেজার নিয়ন্ত্রিত এমকে ৮২ বোমাটি ব্যবহার করেছে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের শীর্ষ ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান লকহিড মার্টিন ওই বোমার তৈরিকারক। ২০১৬ সালের অক্টোবরে ইয়েমেনের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়ার হলে বিপর্যয়কর হামলায় যে বোমা ব্যবহার করা হয়েছে, সেটির সঙ্গে শিশু হত্যার ওই বোমার মিল আছে।

দুই বছর আগের ওই হামলায় ১৫৫জন নিহত ও শতাধিক আহত হয়েছিলেন।

সৌদি আরব দাবি করেছে, ভুল তথ্যের কারণে শিশুদের ওপর হামলা হয়েছে। এটা ভুল হয়েছে বলে দেশটি স্বীকার করেছে।

২০১৬ সালের ওই হামলার পর মানবাধিকার নিয়ে উদ্বেগ দেখা দিলে যুক্তরাষ্ট্রের তখনকার প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা সৌদির কাছে এ ধরনের বোমা বিক্রি নিষিদ্ধ করেছিলেন।

২০১৭ সালের মার্চে ট্রাম্প প্রশাসনের তখনকার পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসন সেই নিষেধাজ্ঞা উঠিয়ে দেন। যুক্তরাষ্ট্র বলছে, সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট কোথায় হামলা চালাবে, সেই সিদ্ধান্ত তারা নিয়ে দেয় না। কিন্তু কোটি কোটি ডলারের অস্ত্র বিক্রির মাধ্যমে সৌদি জোটের অভিযানকে তারা সমর্থন জানাচ্ছে।

মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী জেমস ম্যাটিস বলেন, আমি আপনাদের বলতে চাই যে, আমরা তাদের যে পরিকল্পনায় সহায়তা করছি, সেটাকে লক্ষ্যবস্তুর ধরন বলে আখ্যায়িত করি। কিন্তু তাদের লক্ষ্যবস্তু নির্ধারণ করে দিইনা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here