ভয়াল ২১ আগষ্ট: তদন্ত কর্মকর্তার জেরা অব্যাহত

0
100

10616041_266478136875385_8646962250575994598_nঢাকা: ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার ঘটনায় দায়েরকৃত মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সিআইডির বিশেষ পুলিশ সুপার আব্দুল কাহার আকন্দকে জেরা অব্যাহত রেখেছেন আসামিপক্ষের আইনজীবীরা।

৫ মার্চ রোববার ঢাকার ১ নম্বর দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক শাহেদ নুরুদ্দিনের আদালতে জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থার প্রাক্তন মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আব্দুর রহিম, সিআইডির সিনিয়র এএসপি মুন্সি আতিকুর রহমান এবং তৎকালীন বিশেষ পুলিশ সুপার রুহুল আমিনের পক্ষে তদন্ত কর্মকর্তাকে জেরা করা হয়।

তাদের পক্ষে আইনজীবী আব্দুস সোবহান তরফদার এবং মোহাম্মদ আহসান জেরা করেন। তবে এদিন জেরা শেষ হয়নি। জেরা শেষ না হওয়ায় বিচারক অবশিষ্ট জেরার জন্য আগামীকাল সোমবার দিন ধার্য করেছেন।

গত বছরের ২৪ সেপ্টেম্বর এ সাক্ষীর জবানবন্দি শুরু হয়। এর পর সাতটি ধার্যকৃত তারিখে জবানবন্দি হওয়ার পর গত ৩১ অক্টোবর তা শেষ হয়।

মামলাটিতে আসামি খালেদা জিয়ার ভাগ্নে অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট কমান্ডার সাইফুল ইসলাম ডিউক, প্রাক্তন আইজিপি মো. আশরাফুল হুদা, শহিদুল হক ও খোদা বক্স চৌধুরী এবং মামলার তিন তদন্ত কর্মকর্তা তৎকালীন বিশেষ পুলিশ সুপার রুহুল আমিন, সিআইডির সিনিয়র এএসপি মুন্সি আতিকুর রহমান, এএসপি আব্দুর রশীদ ও প্রাক্তন ওয়ার্ড কমিশনার আরিফুল ইসলাম জামিনে আছেন।

অন্যদিকে প্রাক্তন স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবর, প্রাক্তন উপমন্ত্রী আব্দুস সালাম পিন্টু, হুজি নেতা মুফতি আব্দুল হান্নানসহ ২৪ জন কারাগারে এবং বিএনপির চেয়ারপারসনের বড় ছেলে তারেক রহমানসহ ১৯ জন পলাতক। এ মামলার আরেক আসামি জামায়াত নেতা আলী আহসান মুহাম্মাদ মুজাহিদের মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হয়েছে।

উল্লেখ্য, ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে জনসভায় গ্রেনেড হামলায় আওয়ামী লীগের মহিলাবিষয়ক সম্পাদক ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিল্লুর রহমানের স্ত্রী আইভি রহমানসহ ২৪ জনের মৃত্যু হয়। গ্রেনেডের স্প্লিন্টারের আঘাতে আহত হন কয়েক’শ মানুষ। তৎকালীন বিরোধী দলীয় নেত্রী শেখ হাসিনা সেদিন অল্পের জন্য বেঁচে যান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here