ভারত সফরে হতাশ হবার মতো কিছু ঘটেনি: প্রধানমন্ত্রী

0
114
unnamed_284491ঢাকা: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভারত সফরকে ফলপ্রসূ হিসেবে আখ্যায়িত করে বলেছেন, সফরটা অত্যন্ত ফলপ্রসূ হয়েছে। সম্পূর্ণ তৃপ্তি আছে। তৃপ্তিতে কোন সন্দেহ নেই। যে কোন কাজ আমি করি, তা ভেবেচিন্তে করি, সিদ্ধান্ত নেই। হতাশ হবার কিছু নেই। হতাশ হবার মতো কোন কিছু ঘটেনি।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৭ থেকে ১০ এপ্রিল পর্যন্ত ভারতে রাষ্ট্রীয় সফর সম্পর্কে মঙ্গলবার গণভবনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন। খবর বাসসের

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আকম মোজাম্মেল হক, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম এতে উপস্থিত ছিলেন।

তিনি বলেন, ভৌগলিক দিক থেকে ভারতের তুলনায় আমরা হয়তো ছোট, জনসংখ্যায় কম। কিন্তু সার্বভৌমত্বের দিক দিয়ে আমরা সমান। তৃপ্তির বিষয়টা হচ্ছে, এ সফরে ভারত যে সম্মান দিয়েছে, এই প্রাপ্তিটা বাংলাদেশের জনগণের।

শেখ হাসিনা বলেন, আমার লক্ষ্য ছিলো আঞ্চলিক সহযোগিতা গড়ে তোলা, দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতা গড়ে তোলা। আমরা যেমন নিজেদের উন্নত করতে চাই, তেমনি প্রতিবেশী দেশের উন্নয়ন চাই। তা না হলে টেকসই উন্নয়ন হবে না। এটাই আমাদের লক্ষ্য। আমরা চাই দেশের মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করতে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, সামগ্রিকভাবে আমার এ সফরের মাধ্যমে বাংলাদেশ-ভারতের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কে নতুন গতির সঞ্চার হয়েছে। পারস্পরিক সহযোগিতা-বিশ্বস্ততা-বন্ধুত্বের বহুমুখী সম্পর্ক এই সফরের মাধ্যমে আরও সুসংহত হয়েছে।

‘আমার এই সফরের ফলে দুই দেশের সম্পর্ক বিশেষ উচ্চতায় উন্নীত হয়েছে’ উল্লেখ করে তিনি বলেন, সফরের সময় আমি আরও উল্লেখ করেছি যে, বাংলাদেশ সরকার বাস্তবঘনিষ্ঠ উদ্ভাবনমুখী অর্থনীতি গড়ে তুলতে চায়, যা একটি অন্তর্ভুক্তিমূলক সমাজ ও কর্মসংস্থান নিশ্চিত করবে। আমি নিশ্চিত দুই দেশ একসঙ্গে কাজ করলে, এ অঞ্চলের মানুষের জীবন আমরা বদলে দিতে পারব। সফরকালে তিনি ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদীকে ২০১৮ সালে বাংলাদেশ সফরে আসার আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here