ভারত-ইসরাইল সম্পর্ক নতুন উচ্চতায় যাচ্ছে

0
144

ind-isl_44627_1492037897আন্তর্জাতিক ডেস্ক: প্রথম ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী হিসেবে ইসরাইল সফরে যাচ্ছেন মোদি। সফরে ইসরাইলের সঙ্গে দুটি প্রতিরক্ষা চুক্তি করছে ভারত। এ চুক্তির আওতায় ভারতকে ৮০০০ মিসাইল সরবরাহ করবে ইসরাইল। গত তিন বছর ধরে ইসরাইল ভারতের তৃতীয় বৃহত্তম অস্ত্র সরবরাহকারী।

মধ্যপ্রাচ্যের এ ইহুদিবাদী দেশটির সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক আরও জোরদার করার লক্ষ্যে আগামী জুলাই মাসে রাষ্ট্রীয় সফরে যাবেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

ভারতীয় কোনো প্রধানমন্ত্রীর এটাই প্রথম ইসরাইল সফর। নরেন্দ্র মোদির এ সফর পরিকল্পনা ইসরাইলি অস্ত্রের সর্ববৃহৎ ক্রেতা পরিচয় ছাড়িয়ে সহযোগিতার সম্পর্ক অন্য পর্যায়ে নিয়ে যাওয়ার ইঙ্গিত দিচ্ছে।

গবেষণা প্রতিষ্ঠান ইউরেশিয়া গ্রুপের এশিয়ার রাজনীতি বিশ্লেষক শৈলেশ কুমার বলেন, ‘নরেন্দ্র মোদির এ সফর একটা বড় মাইলফলক হতে যাচ্ছে। উভয় দেশের কর্মকর্তারা বিশ্বাস করেন, সন্ত্রাসবাদের মতো অভিন্ন হুমকির মুখে রয়েছেন তারা। যুক্তরাষ্ট্র-ইসরাইল বন্ধুত্বের বাস্তবতায় যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সম্পর্ক আরও গভীর করার লক্ষ্যে ইসরাইলের সঙ্গে কাজ করার ক্ষেত্রে জোর দিচ্ছেন মোদি।’

ব্লুমবার্গ জানায়, এ প্রতিরক্ষা চুক্তির আওতায় ভারতের সেনাবাহিনীর জন্য ট্যাংক বিধ্বংসী মিসাইল ও নৌবাহিনীর জন্য বারাক-৮ নামের আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা থাকবে। ১৫০ কোটি ডলারের এ চুক্তি আগামী দুই মাসের মধ্যে চূড়ান্ত করা হবে। চুক্তি সইয়ের দুই বছর পর ৮০০০ মিসাইল ভারতে সরবরাহ শুরু হবে।

চীন ও পাকিস্তানের সঙ্গে সম্পর্কের টানাপোড়েনের মাঝে ভারতের সশস্ত্রবাহিনীকে আরও আধুনিকীকরণের পরিকল্পনা করছেন মোদি। আর এ লক্ষ্যেই ২০২৫ সালের মধ্যে প্রতিরক্ষা খাতে ২৫০০ কোটি ডলার ব্যয় করবেন তিনি। ২০১৪ সালের মে মাসে ক্ষমতায় আসার পর মোদির সরকার ইসরাইলের সঙ্গে ভারতের সম্পর্কের ক্ষেত্রে পূর্বসূরিদের যে রক্ষণশীলতা ছিল, স্পষ্টত তা ঝেড়ে ফেলেছেন।

বিবেকানন্দ ইন্টারন্যাশনাল ফাউন্ডেশনের সিনিয়র গবেষণা সহযোগী আলভিত সিং নিনথোজাম বলেন, ‘প্রতিরক্ষা চুক্তির বিষয়টা একটা স্পষ্ট বার্তা দিচ্ছে যে, ইসরাইলের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ সম্পর্কে যাওয়ার ক্ষেত্রে ভারতের আর কোনো সংশয় নেই এবং এটা স্বাধীন একটি পররাষ্ট্রনীতি ঝালিয়ে নিচ্ছে। আর এ সম্পর্ক প্রতিবেশী কোনো দেশের সঙ্গে সম্পর্কের ওপর কোনো প্রভাব ফেলছে না।’

২০১৬ সাল পর্যন্ত গত তিন বছরে ভারতে অস্ত্র সরবরাহের দিক দিয়ে ইসরাইল তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে। ওই সময়ের মধ্যে ১০টি চুক্তির আওতায় ভারতকে প্রায় ১০০ কোটি ডলারের অস্ত্র দিয়েছে মধ্যপ্রাচ্যের এ পরমাণু শক্তিধর দেশটি। তবে ভারতের সঙ্গে প্রতিরক্ষা চুক্তির ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র ও রাশিয়া সর্বোচ্চ অবস্থানে রয়েছে।

LEAVE A REPLY