বেশি লোক দেখাতে ট্রাম্পের অভিষেক অনুষ্ঠানের ছবি সম্পাদন

0
20

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: লোকজন বেশি দেখাতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের শপথ অনুষ্ঠানের ছবি ইচ্ছাকৃতভাবে সম্পাদন করেছিলেন বলে তদন্ত কর্মকর্তাদের কাছে স্বীকার করেছেন দেশটির সরকারি এক আলোকচিত্রী।

যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদমাধ্যম সিএনএন জানিয়েছে, ২০১৭ সালে হওয়া এক তদন্তে এ স্বীকারোক্তির কথা উঠে এসেছিল বলে সম্প্রতি প্রকাশিত বেশ কিছু নথিতে নিশ্চিত হওয়া গেছে।

সিএনএন বলছে, ট্রাম্প ও সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার অভিষেকে উপস্থিত জনসাধারণের তুলনা করে যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল পার্ক সার্ভিস (এনপিএস) সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে যে পোস্ট শেয়ার করেছিল আলোকচিত্রীর স্বীকারোক্তি তার ওপর নতুন করে আলো ফেলল।

ওয়াশিংটনে অভিষেক অনুষ্ঠানের পর রিপাবলিকান প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প গণমাধ্যমে প্রকাশিত ছবি ও ভিডিও দেখে মনঃক্ষুন্ন হয়েছিলেন। বলেছিলেন, মঞ্চ থেকে তিনি যত লোককে দেখেছেন অনুষ্ঠানের ফুটেজে তা দৃশ্যমান হয়নি।

হোয়াইট হাউসের তৎকালীন প্রেস সেক্রেটারি শন স্পাইসারও পরের সন্ধ্যাতেই সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে বলেন, অভিষেকের সাক্ষী হওয়া সর্বোচ্চ জনসমাগম ছিল এটি।

এরপর এনপিএস অভিষেকের বেশ কয়েকটি ছবি প্রকাশ করে, যেখানে অসংখ্য মানুষের উপস্থিতি বোঝানো হয়। ছবিগুলো সম্পাদনা করা হয়েছে বলে তখনই অনেকে সন্দেহ প্রকাশ করেছিলেন।

ব্রিটিশ দৈনিক গার্ডিয়ান সবার আগে অভিষেকের ছবি নিয়ে মার্কিন ইন্সপেক্টর জেনারেল কার্যালয়ের স্বরাষ্ট্র বিভাগের তদন্তের নথির খবর প্রকাশ করে। এসব নথিতে আলোকচিত্রী ও বেশিরভাগ সরকারি কর্মকর্তাদের নাম-পরিচয় গোপন রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছে সিএনএন।

নথিতে বলা হয়, ট্রাম্প তার হোয়াইট হাউসের কার্যালয়ে পুরোদমে কাজ শুরুর প্রথম দিনই এনপিএসের তখনকার ভারপ্রাপ্ত পরিচালক মাইকেল রেনল্ডসকে ডেকে পাঠান।

ওই দিন সকাল সাড়ে নয়টার দিকে তিনি নতুন মার্কিন প্রেসিডেন্টের সঙ্গে কথা বলেন বলে তদন্ত কর্মকর্তাদের জানিয়েছেন রেনল্ডস। সিএনএনের খবরে বলা হয়েছে, কর্মকর্তারা তাদের নোটে লিখেছেন, প্রেসিডেন্ট তাকে অভিষেকের ছবি সরবরাহ করতে বলেন।

তাৎক্ষণিকভাবে ট্রাম্পের ওই নির্দেশ বিভিন্ন বিভাগের কর্মীদের কাছে পৌঁছে দেন রেনল্ডস। নির্দেশ প্রাপ্তদের মধ্যে কমিউনিকেশন বিভাগের নাম না জানা এক কর্মীও ছিলেন।

ওই কর্মী বলেন, তাকে বলা হয়েছিল, অভিষেকের যেসব ছবি এনপিএসের কাছে আছে ট্রাম্প সেগুলো দেখতে চেয়েছেন।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ছবিগুলোতে জনসমাগমের ভিড় ও বেশি মানুষের উপস্থিতি দেখতে চেয়েছিলেন, নারী কর্মীটি এমনটিই বুঝতে পেরেছিলেন বলে নথিতে উল্লেখ করেছেন কর্মকর্তারা।

তদন্ত কর্মকর্তারা বলেন, গণমাধ্যমগুলো যেসব ছবি প্রকাশ করেছিল সেসব ছবি ওয়াইড অ্যাঙ্গেলের ও তাতে অনেক বেশি খালি জায়গা ছিল বলেও ওই নারী বলেছিলেন। হোয়াইট হাউস ওইসব ছবি ক্রপ করে অনুষ্ঠানে বেশি লোকের উপস্থিতি দেখতে চেয়েছিল বলেও মনে হয়েছিল তার। রেনল্ডস এমন কিছু চাননি বলেও স্বীকার করেছেন তিনি।

হোয়াইট হাউসের প্রেস সেক্রেটারি স্পাইসারও পার্ক সার্ভিসকে অভিষেকের ছবি দিতে বলেন বলে এনপিএস-র এক কর্মী তদন্ত কর্মকর্তাদের জানান।

কর্মকর্তারা তাদের নথিতে উল্লখ করেন, ওই নারী বুঝেছিলেন, তিনি (স্পাইসার) ছবির বেশিরভাগ অংশ অভিষেকে আসা জনসমাগমে পূর্ণ দেখতে চেয়েছিলেন।

অভিষেক অনুষ্ঠানে কাজ করা অন্তত দুইজন আলোকচিত্রীর কাছে ছবির অতিরিক্ত ওই অনুরোধ পৌঁছে দেয়া হয়।

এদের মধ্যে এক আলোকচিত্রী তদন্ত কর্মকর্তাদের বলেন, ট্রাম্প-রেনল্ডসের কথাবার্তার ৩০ মিনিট পর তিনি কার্যালয়ে এসে ছবিগুলো ক্রপ করেন; ছবিগুলোর শেষাংশে যেখানে জনসাধারণের ভিড় শেষ হয়েছে, সে অংশটুকু ফেলে দেন বলেও জানান এ সরকারি আলোকচিত্রী।