ফুলে ফুলে ছেয়ে গেছে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি

0
253

0951304_kalerkantho_picঢাকা: ফুলে ফুলে ছেয়ে গেছে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি। বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের ঢল নামে ধানমন্ডির ৩২ নাম্বারে। লোকে লোকারণ্য হয়ে পড়ে ধারনমণ্ডি ৩২ এলাকা। আওয়ামী লীগ ও এর সহযোগী সংগঠনগুলো ছাড়াও বিভিন্ন রাজনৈতিক, পেশাজীবী, সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠনসহ সর্বস্তরের মানুষ বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন। হারানোর বেদনা, শ্রদ্ধা, ভালোবাসায় স্মরণ করা হয় জাতির জনককে।

সকাল ৬টা ৩২ মিনিটে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানান রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এ সময় সশস্ত্র বাহিনীর চৌকস দল গার্ড অব অনার প্রদান করে, বিউগলে বাজানো হয় করুণ সুর। রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী কিছুক্ষণ নিরবে দাঁড়িয়ে থাকেন। পরে ১৫ আগস্টের সব শহীদসহ মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়। রাষ্ট্রপতির যাওয়ার পর ৬টা ৪৪ মিনিটে আওয়ামী লীগ সভাপতি হিসেবে দলের শীর্ষ নেতাদের নিয়ে প্রতিকৃতিতে ফের শ্রদ্ধা জানান শেখ হাসিনা। বঙ্গবন্ধুর আরেক কন্যা শেখ রেহানা, প্রধানমন্ত্রীকন্যা সায়মা ওয়াজেদ পুতুলসহ বঙ্গবন্ধুর স্বজনরা স্মৃতি জাদুঘর প্রাঙ্গণ থেকে শেখ মুজিবের প্রতি শ্রদ্ধা জানান। প্রায় পৌনে ৭টার দিকে বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা জাদুঘরের ভেতরে যান, সেখানে তিনি বেশ কিছুক্ষণ অবস্থান করেন।

পরে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে জাতীয় সংসদের স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী, কেন্দ্রীয় ১৪ দলের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা জানানো হয়। বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ উপস্থিত সবার বিষাদ চেহারা স্মরণ করিয়ে দিচ্ছিল ১৯৭৫ এর ১৫ আগস্টের শোকাবহ সে দিনের কথা। কালো পোশাক, কালো ব্যাজ পরে এসেছিলেন সবাই। ৭টা ২০ মিনিটের দিকে প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর এলাকা ছেড়ে ১৫ আগস্টের অন্য শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে বনানী কবরস্থানে যান। সাড়ে ৭টার দিকে কবরস্থানে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর এলাকা ছেড়ে যাওয়ার পর শ্রদ্ধা জানাতে সবার জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়। এ সময় এদিকে বনানী কবরস্থানেও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা জানানোর পর জনতার ঢল নামে। বিপুলসংখ্যক মানুষ ১৫ আগস্টের শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!