ফল খাওয়ার সঠিক সময়

0
226

folসারাদিনে ঘুরেফিরে প্রায়ই আমাদের নানারকম ফল খাওয়া হয়। অনেক সময় শারিরীক নানারকম সুস্থতার জন্যেও ফল খাওয়াকে বেশ উপকারী একটা পদ্ধতি মনে করি আমরা। ইচ্ছাকৃত হোক কিংবা অনিচ্ছাকৃত- এটা সত্যি যে ফল আমাদের শরীরের জন্যে এনে দেয় ভিটামিন, প্রোটিনসহ আরো নানারকম খনিজ উপাদানের পূর্ণাঙ্গ যোগান। পূরণ করে নানারকম চাহিদা। তবে যতটা উপকারীই হোকনা কেন ভুল সময়ে ফল খাওয়ার কারণে এই উপকারিতার পরিমাণ অনেকটাই কিন্তু কমে যেতে পারে। যদি আরো অনেকের মতন এই ভুল আপনিও না করতে চান তাহলে দেখে নিন ফল খাওয়ার সঠিক সময় কোনটি, আর কোনটি নয়।

সকালবেলার নাস্তায় বেছে নিন ফলকে

পরে উচ্চমাত্রার ফ্রুক্টোজ থাকবার কারণে এটি আমাদের শরীরকে সেই সময়টাতে অনেক বেশি শক্তি দিতে পারে যখন সেটা আমাদের দরকার। এই যেমন, ঘুম থেকে ওঠার পর। একদম সকালবেলায়। সারারাত ঘুমোবার পর সকালে প্রথমেই আমাদের শরীর খানিকটা শক্তি চায়। আর সেসময় ফল হতে পারে আপনার জন্যে সবচাইতে উপযুক্ত একটি খাবার। অন্যদিকে, রাতে ফল গ্রহন করলে এতে করে সারা রাত আপনার ঘুমে বিঘ্ন ঘটতে পারে। তাই রাতে নয়, বরং সকালবেলায় নাস্তা ভারী কিছু খাওয়ার কমপক্ষে আধঘন্টা থেকে ১ ঘন্টা আগে বেছে নিন ফলকে।

ভারী খাবারের সাথে ফল? কখনোই না

একটা কথা সবসময়ই মাথায় রাখতে হবে যে, ফলকে কেবল আরো অনেক ফলের সাথেই খাওয়া উচিত। অন্য কোন খাবারের সাথে নয়। বিশেষ করে ভারী খাবারের সাথে তো নয়ই। কারণ, এক্ষেত্রে ভারী খাবারের সাথে ফল গ্রহন করলে সেটা ঠিকঠাকভাবে হজম হয়না। সৃষ্টি করে গ্যাস্ট্রিকসহ নানারকম সমস্যার। তাই হজমের এই গোলযোগ থেকে দূরে থাকতে ভারী খাবার ও ফলকে একসাথে মেশানো থেকে বিরত থাকুন।

দিনের যেকোন সময়

সকালবেলা ছাড়াও দিনের মধ্যভাগের একটু পর, অর্থাত্, বিকেলবেলায় ফল গ্রহন করাটাও বেশ কার্যকরী। তবে দিনের যেকোন সময়েই টুকটাক খাবার হিসেবে ফল খেতে পরেন আপনি। ফল আপনাকে দেবে ভিটামিন সি,কে, ফলেট, পটাশিয়ামসহ নানারকম খাদ্যপাদানের সরবরাহ। সেইসাথে সারাদিন শক্তির সাথে সাথে সুস্থ শরীরের নিশ্চয়তাও দিয়ে দেবে আপনাকে এটি। তাই রাতে ঘুমোবার আগে আর ভারী খাবার খাওয়ার সময় ফল খাওয়া থেকে বিরত থাকুন। আর বাকী সবটা সময়ে ফল গ্রহন করুন আর নিজেকে সুস্থ রাখুন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here