দায়মুক্তি পেলে সিনেটে রাজসাক্ষী হবেন ফ্লিন, ট্রাম্পের রুশ যোগাযোগ

0
117
untitled-22_281409আন্তর্জাতিক ডেস্ক: দায়মুক্তি ও নিরাপত্তার আশ্বাস পেলে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্বাচনকালীন রুশ সংযোগের বিষয়ে রাজসাক্ষী হতে চান তারই বহিষ্কৃত নিরাপত্তা উপদেষ্টা মাইকেল ফ্লিন। গতকাল শুক্রবার ফ্লিনের আইনজীবী রবার্ট কেলনার এক বিবৃতিতে এমন আভাস দিয়েছেন। খবর বিবিসি ও সিএনএনের।

ক্ষুব্ধ ট্রাম্পও এরই মধ্যে এর পাল্টা জবাবে বলেছেন, চলমান পরিস্থিতিতে ফ্লিনের অবশ্যই উচিত দায়মুক্তির দাবি জানানো। কারণ, এখন নির্বাচনে হেরে যাওয়া ডেমোক্র্যাট দল ও গণমাধ্যম প্রতিশোধ নিতে মরিয়া। একই দিনে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনও ট্রাম্পের সঙ্গে যোগাযোগের বিষয়টি অস্বীকার করেছেন। পাশাপাশি চলতি বছরের মধ্যেই তার সঙ্গে সাক্ষাতের আশা প্রকাশ করেন।

গতকাল এক বিবৃতিতে ফ্লিনের আইনজীবী কেলনার বলেন, নিশ্চিতভাবে জেনারেল ফ্লিনের অনেক কিছু বলার আছে। তিনি এটা বলতেও চান, যদি পরিস্থিতি সুযোগ তৈরি করে দেয়। তবে অন্যায্য বিচারের আশঙ্কার মাঝে দায়মুক্তির আশ্বাস ছাড়া কোনো ব্যক্তিই এ ইস্যুতে মুখ খুলবেন না। রাশিয়ার সঙ্গে ট্রাম্প প্রশাসনের সম্ভাব্য সম্পর্ক নিয়ে তদন্ত চালাচ্ছে কেন্দ্রীয় তদন্ত ব্যুরো (এফবিআই) এবং কংগ্রেসের সিনেট ও হাউস ইন্টেলিজেন্স কমিটি। গতকাল সিনেটের গোয়েন্দাবিষয়ক কমিটি প্রথম দফা শুনানি শুরু করেছে। যাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে তাদের মধ্যে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের জামাতা কুশনারও রয়েছেন।

গত ফেব্রুয়ারিতে রাশিয়ার ওপর নিষেধাজ্ঞা বাতিলের বিষয়ে রুশ রাষ্ট্রদূত সের্গেই কিসলিয়াকের সঙ্গে বৈঠকের কথা গোপন করার অভিযোগ ওঠে মাইকেল ফ্লিনের বিরুদ্ধে। এর জের ধরে এক মাসের মাথায় নিরাপত্তা উপদেষ্টার পদ ছাড়তে হয়

ফ্লিনকে। ফ্লিন তা করে থাকলে তবে তা হবে আইনের লঙ্ঘন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here