‘দলিতদের নয় আমাকে গুলি করুন’: নরেন্দ্র মোদি

0
148

full_1463807680_1470652768ঢাকা ডেস্ক: গরু রক্ষার নামে ভারতজুড়ে সংখ্যালঘু ও দলিতদের ওপর নির্যাতন-সহিংসতাকারীদের একহাত নিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। গতকাল রোববার হায়দরাবাদে নিজ দল বিজেপির এক সমাবেশে মোদি বলেন, হামলা-গুলি করতে চাইলে আমাকে করুন। দলিতদের গুলি করবেন না। এর আগে তেলেঙ্গানায় ভগীরথ প্রকল্পের উদ্বোধন করতে গিয়ে মোদি দেশবাসী ও সব রাজ্যের প্রতি ‘ভুয়া গো-রক্ষাকারী’দের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানোর আহ্বান জানান। তিনি বলেন, এসব মানুষ আদতেই গরু রক্ষা করার বিষয়ে চিন্তিত নয়। তাদের আসল উদ্দেশ্য, গো-রক্ষার নামে সমাজে অস্থিরতা তৈরি করা।

সম্প্রতি ভারতের বিভিন্ন রাজ্যে গরু রক্ষার নামে দলিত ও সংখ্যালঘু নির্যাতন বেড়েছে। গত সেপ্টেম্বর উত্তর প্রদেশ রাজ্যের দাদরিতে আখলাক নামের এক ব্যক্তি ফ্রিজে গরুর মাংস রাখায় শতাধিক ব্যক্তি তাকে পিটিয়ে হত্যা করে। গুজরাটের উনায় দলিত চার ব্যক্তিকে কথিত গরু রক্ষাকারীরা পিটিয়ে আহত করে। এরপর মধ্যপ্রদেশের মন্দসৌরে গরুর মাংস নিয়ে যাচ্ছে সন্দেহে দুই নারীকে পুলিশের সামনেই মারধর করা হয়। গরুর মাংস খেয়েছে অভিযোগে কর্ণাটক রাজ্যে একটি দলিত পরিবারের ওপর হামলা চালিয়েছে হিন্দুত্ববাদী বজরং দলের কর্মীরা। এসব বিষয় নিয়ে দেশে-বিদেশে সমালোচনার মুখে পড়ে মোদির সরকার। অবশেষে এসব সহিংসতার বিরুদ্ধে কঠোর অবস্থানের কথা জানালেন মোদি।

গো-রক্ষার নামে সাধারণ মানুষের ওপর ‘জুলুমবাজি’র নিন্দা জানিয়ে মোদি বলেন, গো-রক্ষার নাম করে যারা সমাজবিরোধী কাজকর্ম করছে, তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা চান তিনি। তিনি নিজ দল বিজেপির লোকজন ও দেশবাসীকে বলেন, আমাদের দলিত ও সংখ্যালঘুদের মতো প্রান্তিক জনগোষ্ঠীকে রক্ষা করতে হবে। এটি আমাদের দায়িত্ব।

এদিকে মোদির এসব কথাকে ‘গলাবাজি’ বলে কটাক্ষ করেছে কংগ্রেস। দলের মুখপাত্র মনীশ তিওয়ারির অভিযোগ, প্রধানমন্ত্রীর সহযোদ্ধারাই গো-রক্ষার নামে সন্ত্রাস চালাচ্ছে। তিনি বলেন, মোদির উচিত ভিএইচপিকে নিষিদ্ধ করার জন্য আরএসএসের ওপর চাপ সৃষ্টি করা, বজরং দলের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here