তুরস্কে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উদযাপন

0
69

যথাযোগ্য মর্যাদায় বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে আঙ্কারায় ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উদযাপিত হয়েছে। দিবসটির তাৎপর্য তুলে ধরতে দূতাবাস মিলনায়তনে একটি আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। সভায় আঙ্কারায় বসবাসরত বাংলাদেশি প্রবাসীগণ এবং দূতাবাসের কর্মকর্তা, কর্মচারীবৃন্দ অংশ নেন।

দিবসটি উপলক্ষে আলোচনা সভার শুরুতেই রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি কর্তৃক প্রদত্ত বাণী পাঠ করা হয়। এ দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র ও প্রকাশনা অধিদফতর কর্তৃক নির্মিত প্রামাণ্য চিত্র ‘মুজিবনগর সরকার’ প্রদর্শিত হয়।

আলোচনা পর্বে তুরস্কে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এম. আল্লামা সিদ্দীকী ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরতে গিয়ে বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অসামান্য নেতৃত্বগুণে বাংলাদেশের স্বাধীনতার পক্ষে জনমত গড়ে ওঠে এবং ২৫ মার্চ কাল রাতে গ্রেফতার হওয়ার পূর্ব মুহুর্তে বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশের স্বাধীনতার ঘোষণা করেন। এরই ধারাবাহিকতায় পরবর্তীতে বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম পরিচালনার জন্য ১৭ এপ্রিল মেহেরপুর জেলার মুজিবনগর থানাধীন বৈদ্যনাথতলার আম্রকাননে ঐতিহাসিক মুজিবনগর সরকার গঠন করা হয়। বিশ্বব্যাপী বাংলাদেশের স্বাধীনতার জন্য জনমত গঠন এবং যুদ্ধের রণকৌশল নির্ধারণে মুজিবনগর সরকার অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

এছাড়া, আলোচনায় রাষ্ট্রদূত জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বাংলাদেশের স্বাধীনতার জন্য অতুলনীয় অবদানের কথাও গভীর কৃতজ্ঞতা ও শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করেন। একই সাথে তিনি জাতীয় চার নেতাসহ মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক এবং বীরসেনানীদের কথা বিস্তৃতভাবে আলোচনা করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here