টিএসসিতে ওবায়দুল কাদের ‘সরকারকে পরপর চারবার ক্ষমতায় থাকতে হবে’

0
105

nH7ZJL_36ঢাকা: উন্নয়নের ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে হলে সরকারকে পরপর চারবার ক্ষমতায় থাকতে হবে বলে মনে করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

ওবায়দুল কাদের বলেন, দেশের উন্নয়নে সরকারের ধারাবাহিকতা দরকার। এই যে টানা দু’বার ক্ষমতায় আছি সেজন্য উন্নয়নও হয়েছে সবচেয়ে বেশি। আওয়ামী লীগ যদি ৯৬ থেকে টানা ক্ষমতায় থাকত, তাহলে বাংলাদেশ অনেক আগেই মধ্যম আয়ের দেশ হত। মঙ্গলবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র শিক্ষক কেন্দ্র (টিএসসি) মিলনায়তনে আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বিএনপি আজকে ভিশনের বিপরীতে ভিশন দিয়েছে। তারা বলছে, ভিশন দিয়ে চাঙ্গা হয়ে গেছে। কেমন চাঙ্গা হয়ে গেছে তা তো আমরা দেখছি। কুমিল্লায়-রাজশাহীতে সভায় কেন্দ্রীয় নেতাদের উপস্থিতিতে মারামারি চেয়ার ছোড়াছুড়ি হয়েছে। আওয়ামী লীগের ভিশন অনুকরণ করে বিএনপি যদি তা অনুসরণ করে তাহলে অন্তত এটুকু বুঝে নেব তারা নেতিবাচক রাজনীতি থেকে ফিরে এসে ইতিবাচক পথে এসেছেন। সেটা হলে দেশের গণতন্ত্রের জন্য মঙ্গল।

শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের গুরুত্বারোপ করতে গিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ৭৫ পরবর্তী এদেশে যে নেতৃত্ব শূন্যতা সৃষ্টি হয়েছিল শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের মাধ্যমে তা কানায় কানায় পূর্ণ হয়েছে। রাজনীতির জীবন পুষ্পমণ্ডিত নয়, এ জীবন অনেক দুর্গম অনেক ঝুঁকিপূর্ণ। রাজনীতির মাঠে বর্তমানে যার জীবন সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ, তার নাম শেখ হাসিনা। এ পর্যন্ত ২০ বারেরও বেশি তার ওপর আঘাত হানা হয়েছে।

জাতীয় নির্বাচন সামনে রেখে ছাত্রলীগকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়ে সাবেক ছাত্রলীগ সভাপতি বলেন, ছাত্রলীগকে শুধু এটুকু বলব, তোমরা ঐক্যবদ্ধ থাক। নির্বাচনের আর মাত্র দেড় বছর বাকি। অনেক পথ পাড়ি দিতে হবে। এ সময় তিনি যত দ্রুত সম্ভব নিয়মিত ছাত্রদের দিয়ে ছাত্রলীগের বিভিন্ন পর্যায়ের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের আহ্বান জানান।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) ছাত্রলীগ আয়োজিত এ সভায় সভাপতিত্ব করেন বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি আবিদ আল হাসান। সাধারণ সম্পাদক মোতাহের হোসেন প্রিন্সের সঞ্চালনায় এতে আরও বক্তব্য রাখেন ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ ও সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here