কান্দিল বালোচ হত্যা: ধর্মীয় নেতাকে তলব

0
100

160716114955আন্তর্জাতিক ডেস্ক: গত মাসে কান্দিল বালোচ মুফতি আব্দুল কাভির সঙ্গে সেলফি তুলে পোষ্ট করার পর দলের দুটি গুরুত্বপূর্ণ পদ থেকে পদচ্যুত করা হয়েছিলো ঐ ধর্মীয় নেতাকে।

এখন এই হত্যায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য কাভিকে তলব করেছে তদন্তকারী সংস্থা।মিস বালোচ নিহত হবার খবর শুনে মি. কাভি মন্তব্য করেছিলেন, পাকিস্তানে ধর্মীয় নেতাদের নিয়ে মজা করবেন এমন সবার জন্যই এ ঘটনাটি একটি শিক্ষা হবে।তবে, তিনি কান্দিলকে ‘মাফ’করে দিয়েছেন বলেও জানিয়েছিলেন।-বিবিসি।

এখন মিস বালোচের হত্যায় নিজের কোন সম্পৃক্ততা ছিল না বলে দাবি করেছেন কাভি।কাভি বলেছেন, পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে তিনি হাজির হবেন।

পরিবারের সম্মান নষ্ট করেছেন এ অভিযোগে মিস বালোচের ভাই তাকে শ্বাসরোধ করে গত সপ্তাহে হত্যা করে।রোববার কান্দিল বালোচকে তাদের পারিবারিক গোরস্তানে দাফন করা হয়।ফেসবুকে কান্দিলের সাত লাখ ফলোয়ার ছিলো।

তার ২৫ বছর বয়সী ভাই ওয়াসিম বালোচ এই হত্যাকাণ্ডের দায় স্বীকার করেছেন এবং তাকে পুলিশ আটকও করেছে। ভাই ওয়াসিম বালোচ বলেছেন, মুসলিম নেতার সাথে ছবি প্রকাশের পরেই তিনি তার বোনকে হত্যা করার সিদ্ধান্ত নেন।

মিস বালোচ ১৪ই জুলাই ফেসবুকে লিখেছিলেন, “আমি আধুনিক যুগের একজন নারীবাদী। আমি সাম্যে বিশ্বাস করি। নারী হিসেবে আমি কেমন হবো সেটা আমাকে ঠিক করতে হবে। আমার মনে হয় না শুধু সমাজের জন্যে নারীদের চলতে হবে। আমি মুক্তচিন্তা ও মুক্তমনের একজন নারী। আমি এই আমাকে ভালোবাসি।”

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here