এলিয়েন জগতের ২০টি গ্রহ যা পৃথিবীর মতোই!

0
229

imagesপৃথিবীর মতো দ্বিতীয় কোনো গ্রহের সন্ধানে বহুকাল ধরে ব্যস্ত বিজ্ঞানীরা। নতুন এক গবেষণায় বলা হয়েছে, এযাবৎকাল ধরে নাসা কেপলার স্পেস টেলিস্কোপের মাধ্যমে ৪ হাজারেরও বেশি এক্সপ্ল্যানেট আবিষ্কার করেছে। এগুলো সেই সব গ্রহ যা সৌরজগতের বাইরে কোনো নক্ষত্রকে কেন্দ্র করে ঘুরছে। এসব গ্রহের মধ্যে কোন গ্রহগুলো পৃথিবীর মতো বা এর কাছাকাছি তার তালিকা করেছেন বিজ্ঞানীরা। সে তালিকায় স্থান করে নিয়েছে ২০টি গ্রহ।

এই ২০টি ‘পৃথিবীর মতো’ গ্রহ সূর্যের মতো কোনো না কোনো নক্ষত্রকে কেন্দ্র করে ঘুরছে। অর্থাৎ তাদের কোনটিতে তরল অবস্থায় মিলবে পানি। আর পৃথিবীর মতো এসব গ্রহগুলোতেই প্রাণের সন্ধান মিলবে। এমনটাই মনে করেন সান ফ্রান্সিসকো স্টেট ইউনিভার্সিটির ফিজিক্স অ্যান্ড অ্যাস্ট্রোনমি বিভাগের অ্যাসোসিয়েট প্রফেসর স্টিফেন কেইন।

তার মতে, এখন আমাদের এইসব গ্রহতে দৃষ্টি দিলে এবং নিয়মিত গবেষণা করলে অনেক কিছু বেরিয় আসবে। অন্তত পৃথিবীর মতো গ্রহগুলোতে মানুষের বসবাস সম্ভব কিনা তা জানা যাবে।

কেন ও তার দল বসবাসযোগ্য বলে মনে হয় এমন ২১৬টি কেপলার প্ল্যানেট এবং ক্যান্ডিডেট খুঁজে পেয়েছেন। ক্যান্ডিডেট শব্দটির পুরো অর্থ এখনো বেরিয়ে আসেনি বা বিজ্ঞানীরা তার পূর্ণাঙ্গ ব্যাখ্যা তৈরি করেননি। কেপলারের মাধ্যমে ৪৭০০টি ক্যান্ডিডেট খুঁজে পাওয়া গেছে। এদের মধ্যে ২৩০০টিরও বেশি সংখ্যাক ক্যান্ডিডেটকে নিশ্চিত করা গেছে।

দ্বিতীয় পৃথিবীকে পেতে হলে তা মহাকাশের বসবাসযোগ্য অঞ্চলের মধ্যে থাকতে হবে। এমন অঞ্চল অনুযায়ী গ্রহগুলোকে ক্যাটাগরিভুক্ত করতে কেইন ও তার দল গ্রহগুলোর আকার ও অন্যান্য বৈশিষ্ট্যের ভিত্তিতে বিবেচনা করেছেন।

পৃথিবীর মতো গ্রহগুলোর মধ্যে সবচেয়ে গ্রহণযোগ্যতা পেয়েছে ২০টি গ্রহ। এর মধ্যে ৫টি শীর্ষে রয়েছে। এগুলো হলো কেপলার-১৮৬এফ, কেপলার-৬২এফ, কেপলার-২৮৩এফ, কেপলার-২৯৬এফ এবং কেপলার-৪৪২এফ। বাকি ১৫টি ক্যান্ডিডেট সম্পর্কেও মোটামুটি নিশ্চিত বিজ্ঞানীরা।

এই মহাজগত এত গ্রহতে পূর্ণ যে এদের মধ্যে বসবাসযোগ্য গ্রহ থাকার সম্ভাবনা খুব বেশি। এত যে গ্রহ ছড়িয়ে রয়েছে তাদের খোঁজ-খবর নেওয়াটাই জরুরি বিষয়। আর বসবাসযোগ্য গ্রহে নতুন জীবনের সন্ধান পাওয়া একেবারেই স্বাভাবিক বিষয়।

অ্যাস্ট্রোফিজিক্যাল জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে নতুন এ গবেষণাকর্মটি।
সূত্র : ফক্স নিউজ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!