অমুসলিমের হামলার দায়ও নিল আইএস!

0
81

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের লাস ভেগাসের একটি ক্যাসিনো থেকে উন্মুক্ত কনসার্টের ওপর নির্বিচারে গুলি চালিয়ে ৫০ জনের বেশি মানুষকে হত্যা করার ‘দায় স্বীকার’ করেছে জঙ্গিগোষ্ঠী আইএস। খবর যমুনা টিভির।

আইএসের প্রোপাগান্ডামূলক বার্তা সংস্থা আমাক-এর বরাতে ব্রিটেনের দ্য ইন্ডিপেন্ডেন্ট জানিয়েছে, হামলাকারী স্টিফেন প্যাডককে নওমুসলিম বলে দাবি করা হয়েছে।

তবে মার্কিন পুলিশের দেয়া তথ্যানুযায়ী প্যাডক একজন খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বী এবং তার বিরুদ্ধে আগে থেকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ আছে।

ওদিকে আইএসের বিবৃতিতে বলা হয়, ‘প্যাডক ইসলামিক স্টেটের একজন সৈনিক। সে মিত্র (যুক্তরাষ্ট্রসহ অন্যান্য) দেশগুলোর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে নামতে আইএসের আহ্বানে সাড়া দিয়ে এ কাজ করেছে।’

অতীতে বিভিন্ন হামলার পরপরই দ্রুত দায় স্বীকারের প্রবণতা আইএসের মধ্যে দেখা গেছে। তারই ধারাবাহিকতায় এবার একজন অমুসলিমের হামলার ‘কৃতিত্ব’ও নিতে চাইছে শক্তির দিক থেকে ক্ষয়িষ্ণু সংগঠনটি।

লাস ভেগাস মেট্রোপলিটন পুলিশ জানিয়েছে, কনসার্টের পাশের একটি ক্যাসিনোর ৩২ তলা থেকে নিচের দিকে গুলি করেন প্যাডক। এতে অসংখ্য মানুষ লুটিয়ে পড়তে থাকে। পরে পুলিশের গুলিতে ৩২ তলায়ই নিহত হন হামলাকারী।

নিহত ওই সন্দেহভাজন একজন স্থানীয় বাসিন্দা জানিয়ে বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, মান্দালয় বে ক্যাসিনোর ৩২ তলা থেকেই পাশের খোলা জায়গায় কনসার্টে জড়ো হওয়া মানুষের ওপর অস্ত্রের গুলি চালানো হয়। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে আসা ভিডিওতে দেখা যায়, গান চলার মধ্যেই হঠাৎ স্বয়ংক্রিয় অস্ত্রের গুলির আওয়াজ শুরু হলে কনসার্ট থমকে যায়। গান শুনতে আসা দর্শকরা খোলা জায়গায় মাথা নিচু করে পরিস্থিতি বোঝার চেষ্টা করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here